অভিমান ভালোবাসা

ভালোবাসি প্রিয় একটু বোঝার চেষ্টা করো!
অযথা দূরত্ব বাড়ছে কেন?—প্রিয় সুযোটা দিয়েই দেখ__
ভালোবাসি ভালোবাসবো অমরত্ব।
ঠিক যেন সূর্য থেকে অস্তগামী, নীলিমার ও নীল আকাশখানী __অতলা সমুদ্রের ঢেউয়ের চেয়ে অল্প-সল্প বেশি!
-বুঝে দেখ কতটা ভালোবাসি!!
ওগো প্রিয়সী অদ্ভুত অভিমানী দূর থেকে বলছি তোমায় ভালোবাসি।
সুযোগটা পেলে আমার চিলে-কোঠা ঘরে নিয়ম মেনে ঘুরে যেও___
–কথা দিলুম পারবেনা আর অভিমান কুড়াতে!
_বাতাস স্রোতে বেহুলা ভাসালে অযথা, প্রয়োজন তাহা ছিল?
-আছো বসে অভিমান দূরত্ব সৃষ্টি করে।
আমি করেছি চেষ্টা ক্লান্ত-তেষ্টা রাগ ভাঙ্গলে বলো।।
ভালোবাসি প্রিয় একটু বোঝার চেষ্টা করো!
—বর্ষণ সন্ধ্যায় বাতাসও  শীতল বকুল ঘ্রাণ বহে যেমন____
জোছনা সন্ধ্যা,বসে আমি একলা রোজ তোমাকেই রপ্ত-রপ্ত করে চলেছি।
-তুমি  বোঝোনা, বুঝেছি তবু কেন অভিমানি আমাকেও একটু ভাবো!
তমি সুযোগটা একটু-একটু দিয়েই দেখ।
_____বলছি আমি শুন!!
ঔ পূর্ণিমা নৈশ্যে দু’জনা একলা হয়ে সারা নিশি জোছনাও কুড়াবো।
—-ঝিঁঝিরাও গাইবে গান,আলো দিবে মিট-মিট।
তুমি অভিমান ভেঙ্গে বলবে তো__প্রিয় আমিও যে বাসি-ভালো!!!

2 thoughts on “অভিমান ভালোবাসা”

  1. এম.এইচ.মুন্না

    আমার পোস্টকৃত কাব্যের এক জাইগাতে বানান ভুল-ত্রুটি হয়েছে।
    (তুমি অভিমান ভেঙ্গে বলবে তো প্রিয়) –এই লাইন টা তে বানান টা সংশোধ করিবার জন্য অনুগ্রহ করা হচ্ছে__👏

Leave a Comment

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Scroll to Top